ড্রিম হলিডে পার্ক | নরসিংদী

0
1411

সংক্ষিপ্ত বিবরনঃ

বাংলাদেশে বিশ্বমানের থিম পার্ক ‘ড্রিম হলিডে( Dream Holiday Park )’। অনন্য সাধারণ এ পার্কটি রাজধানী ঢাকার অদূরে নরসিংদী জেলার সদর উপজেলার পাঁচদোনা চৈতাব এলাকায় ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের পাশে অবস্থিত। বিনোদন প্রিয় মানুষদের জন্য ড্রিম হলিডে পার্ক বিনোদনের অন্যতম  একটি  জায়গা। এখানে ছোট বড় সবার জন্য আলাদা আলাদা রাইড রয়েছে।

৬০ একরের বিশাল এলাকা জুড়ে নির্মিত এ পার্কে রয়েছে নাগেট ক্যাসেল, এয়ার বাইসাইকেল, অস্ট্রেলিয়ার বিখ্যাত ইমু পাখি, মায়াবি স্পট, কৃত্রিম অভয়ারণ্য, ডুপ্লেক্স কটেজ, পার্কে শিশু-কিশোরদের জন্য একাধিক রাইডস, সুবিশাল লেক, হংসরাজ প্যাডেল ও জেট ফাইটার বোট, মনোমুগ্ধকর প্রাকৃতিক পরিবেশবেষ্টিত নয়নাভিরাম ক্যানেল, রকিং হর্স সহ আরো অনেক রাইড।

এয়ার বাইসাইকেল, যা বাংলাদেশের পার্কের জন্য এক নতুন সংযোজন। এতে বসে দু’জন মানুষ অনায়াসে নিজ ইচ্ছায় প্যাডেল চালিয়ে পার্কের ওপর দিয়ে বেড়াতে পারবে।

মায়াবী স্পটে কৃত্রিম জলজ প্রাণীর পিঠে চড়ে পৌঁছে যাবেন রূপকথার মৎস্যকন্যা মায়াবী দানবের দেশে। কিন্তু এখানে পৌঁছতে আপনাকে সাহসী হতে হবে।

ড্রিম হলিডেতে ছড়িয়ে রয়েছে টলমলে জলের একটি ছোট্ট খাল। লেকের মত দেখতে এ খালে চাইলে স্পীড বোটে যে কেউ চাইলে ঘুরে বেড়াতে পারবেন । খালের উপর তৈরি করা হয়েছে লন্ডন ব্রিজের মত একটি ব্রিজ। আছে সিডনী ব্রিজের আদলে তৈরি ব্রিজ।

এখানে আছে বিশাল সুইমিং পুল এছাড়া রয়েছে বিশাল পুকুর।

দিবা  আর রাত্রি নামে দুটি চমৎকার কটেজ রয়েছে ড্রিম হলিডে পার্কে। অসম্ভব সুন্দর কটেজ দুটিতে চাইলে যেকেউ রাত্রি যাপন করতে পারেন।

খাবারের জন্য রয়েছে আলাদা কর্নার এছাড়া আছে আইস কর্নার এবং কপি কর্নার। এর পাশাপাশি রয়েছে নারায়ণগঞ্জের বিখ্যাত ‘জামদানি হাউস’।

কিভাবে যাবেনঃ

ঢাকার গুলিস্তান ও মহাখালি থেকে বাসে করে নরসিংদীতে যেতে পারবেন। গুলিস্তান থেকে মেঘালয় লাক্সারি নামক বাস নরসিংদীর উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। এই বাসে যেতে ভাড়া পরবে ৮০/- টাকা। এছাড়া মহাখালি থেকে নরসিংদীর উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাওয়া বাসগুলোর মধ্যে রয়েছেঃ পিপিএল ট্রান্সপোর্ট, বিআরটিসি এসি বাস, বাদশা, চলনবিল ইত্যাদি। এছাড়া টঙ্গী-পুবাইল হয়ে যায় এমন বাসে উঠলে আপনাকে পাঁচদোনায় নামতে হবে এবং সেখান থেকে প্রায় ১০০/- টাকা ভাড়ায় সিএনজি অটোরিকশায় করে পার্কে পৌছাতে পারবেন।

কি খাবেনঃ

এখানে ২৪ ঘণ্টা দেশি, ইন্ডিয়ান এবং চাইনিজ খাবার পাওয়া যায়।

আপনার কোন প্রশ্ন থাকলে বা এই বিষয়ে কোন কিছু জানানোর থাকলে নীচের মন্তব্য বিভাগে লিখতে ভুলবেন না । আপনার ভ্রমণ পিয়াশি বন্ধুদের সাথে নিবন্ধটি শেয়ার করে নিন যাতে তারাও জানতে পারে ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here