ওসমানী জাদুঘর | সিলেট

0
1100

সংক্ষিপ্ত বিবরণঃ

ওসমানী জাদুঘর( osmani jadughor sylhet )হচ্ছে বাংলাদেশের সিলেট জেলার কোতোয়ালী থানায় অবস্থিত একটি জাদুঘর। বাংলাদেশ সামরিক বাহিনীর সর্বাধিনায়ক (১২ এপ্রিল ১৯৭১– ৭ এপ্রিল ১৯৭২) বঙ্গবীর জেনারেল মুহাম্মদ আতাউল গনি ওসমানীর পৈতৃক নিবাস থেকে পরিবর্তন করে বর্তমান “ওসমানী জাদুঘরে” স্থানান্তর করা হয়। এটি বাংলাদেশের সুপরিচিত সিলেট বিভাগের প্রাণ কেন্দ্র (ধোপা দিঘীর পাড়) সিলেট সিটি কর্পোরেশন এলাকায় অবস্থিত। ওসমানী জাদুঘর সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ১২ কিলোমিটার দূরে এবং সিলেট রেলওয়ে স্টেশন থেকে ৩ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত।

স্বাধীনতা যুদ্ধের সময় বাংলাদেশের মহান মুক্তিযোদ্ধা এম এ জি ওসমানীর অসামান্য অবদানের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে বাংলাদেশ জাতীয় জাদুঘর কর্তৃক এই জাদুঘরটি রক্ষণাবেক্ষণ এবং পরিচালিত হয়।

এই জাদুঘর নতুন প্রজন্মের জন্য নিঃসন্দেহে উদ্দীপনার উৎস হয়ে কাজ করবে। এই জাদুঘরের ভিত্তি প্রস্তর ১৯৮৫ সালের ১৬ই ফেব্রুয়ারি স্থাপন করা হয় এবং ৪ মার্চ ১৯৮৭ সালে তৎকালীন বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ কর্তৃক উদ্বোধন করা হয়।

নূর মঞ্জিল হচ্ছে পাশের এবং কিছু কক্ষ সমেত টিনের-চালার একটি বিশাল ভবন যার সামনে একটি বারান্দা রয়েছে। জাদুঘরে পৌঁছানোর জন্য প্রধান গেট থেকে মাত্র কয়েক মিটার হাঁটতে হয়। প্রবেশকক্ষে দর্শনার্থীদের অভ্যর্থনা জানাতে জেনারেলের বিপুল প্রতিকৃতি রয়েছে। অথিতিদের স্বাগত জানানোর জন্য অভ্যর্থনাকারীরা রয়েছেন। অভ্যর্থনা কক্ষে একজন দর্শনার্থীদের নাম এবং ঠিকানা লিখায় নিয়োজিত থাকেন। প্রবেশকক্ষে বসার জন্য একটি মানানসই জায়গাও রয়েছে। ঐতিহাসিক এই জাদুঘরটিতে তিনটি গ্যালারী আছে, যেখানে জেনারেল ওসমানীর ব্যক্তিগত জিনিসপত্র এবং উল্লেখযোগ্য সংখ্যক ঐতিহাসিক আলোকচিত্র সংরক্ষিত করে রাখা হয়েছে। ভবনের পশ্চিম এবং পূর্ব উভয় পাশে দুটি ছোট্ট কক্ষ বিদ্যমান, যেখানে সহকারী রক্ষক এবং তত্ত্বাবধায়কের কামরা অবস্থিত।

কিভাবে যাবেনঃ
সড়ক পথে ঢাকা হতে প্রথমে সিলেট যেতে হবে; অতঃপর সেখান থেকে জাদুঘরটিতে যেতে হবে। ঢাকা হতে সড়ক পথে সিলেটের দূরত্ব ২৪১ কিলোমিটার এবং রেলপথে ঢাকা হতে সিলেট রেল স্টেশনের দূরত্ব ৩১৯ কিলোমিটার। সিলেট এসে সেখান থেকে রিক্সা বা সিএনজি অটো রিক্সায় অতি সহজেই নাইওর পুল আসা যায়।

সিলেটের মূল বাস স্ট্যান্ড কদমতলী বাস টার্মিনাল অথবা রেল স্টেশন থেকে নাইওর পুলস্থ জাদুঘরটিতে আসার জন্য ভাড়া হবেঃ
রিক্সায় – ৩০/-  ৫০/-
সিএনজিতে – ৮০/- ১২০/-

আপনার কোন প্রশ্ন থাকলে বা এই বিষয়ে কোন কিছু জানানোর থাকলে নীচের মন্তব্য বিভাগে লিখতে ভুলবেন না । আপনার ভ্রমণ পিয়াশি বন্ধুদের সাথে নিবন্ধটি শেয়ার করে নিন যাতে তারাও জানতে পারে ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here