আট কবর | চুয়াডাঙ্গা

0
262
Eight graves

সংক্ষিপ্ত বিবরনঃ

আটকবর( Eight graves ) বাংলাদেশের চুয়াডাঙ্গা জেলার দামুড়হুদা উপজেলায় অবস্থিত একটি গণকবর। বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের ৮জন মুক্তিযোদ্ধার মৃতদেহ এখানে কবর দেওয়া হয় বলে এর নামকরণ করা হয়েছে আট কবর।

১৯৭১ সালের ৩ আগস্ট তৎকালীন স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার হাফিজুর রহমানের নেতৃত্ত্বে ভুল সংবাদের ভিত্তিতেেএকটি জায়গায় অবস্থান নেয়। পাকিস্তানী সেনাবাহিনীর সহায়তাকারী রাজাকার কুবাদ খাঁ মুক্তিযোদ্ধাদের জ্য ফাঁদ তৈরি করে। পরবর্তী মুক্তিযোদ্ধারা সেখানে পৌঁছালে পাকিস্তানি বাহিনীর সাথে তাদের যুদ্ধ হয় এবং যুদ্ধে উভয় পক্ষে হতাহতের ঘটনা ঘটে। পরবর্তী ৮ জন মুক্তিযোদ্ধার মৃতদেহ পাশাপাশি দুটি গর্তে সমাহিত করা হয়।

আটজন শহীদ মুক্তিযোদ্ধাগণ হচ্ছেন-

হাসান জামান – গোকুলখালি, চুয়াডাঙ্গা

খালেদ সাইফুদ্দিন তারেক – পোড়াদহ, কুষ্টিয়া

রওশন আলম – আলমডাঙ্গা, চুয়াডাঙ্গা

আলাউল ইসলাম খোকন – চুয়াডাঙ্গা শহর

আবুল কাশেম – চুয়াডাঙ্গা শহর

রবিউল ইসলাম – মোমিনপুর, চুয়াডাঙ্গা

কিয়ামুদ্দিন – আলমডাঙ্গা

আফাজ উদ্দিন চন্দ্রবাস – দামুরহুদা

এখানে পরবর্তীতে একটি মুক্ত মঞ্চ তৈরি করা হয়েছে। পাশেই তৈরি হয়েছে মুক্তিযুদ্ধ সংগ্রহশালা। চারপাশে বাগান তৈরি করে সৈন্দর্য বৃদ্ধি করা হয়েছে। বাংলাদেশের অস্থায়ী সরকারের রাজধানী মুজিবনগর এখান থেকে ৬ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত।

যা যা দেখবেনঃ

এর পাশেই আছে চুয়াডাঙ্গা ডিসি ইকো পার্ক, তাল সারি সড়ক। অল্প দূরত্ব এ দর্শনা কেরু এন্ড কোং এবং কুড়ুলগাছি বিল দেখতে পারবেন।

কিভাবে যাবেনঃ

চুয়াডাঙ্গা শহর হতে সরারসরি বাস/লেগুনাতে করে আট কবর এ যাওয়া যায়

অথবা বাস/সিএনজি/অটো যোগে দামুড়হুদা বাসস্ট্যান্ড পর্যন্ত যাওয়া যায় অথবা চুয়াডাঙ্গা হতে অটো রিজার্ভ করে আট কবর এ যাওয়া যায়

দামুড়হুদা বাসস্ট্যান্ড হতে বাস/লেগুনা করে আট কবর এ যাওয়া যায়

ভাড়াঃ   চুয়াডাঙ্গা-দামুড়হুদা বাসস্ট্যান্ড  ১. বাস/সিএনজি/অটো যোগে-৩৫/- টাকা।  দামুড়হুদা বাসস্ট্যান্ড হতে বাস/লেগুনা ৩০/- টাকা

রিজার্ভ অটো-২০০-৩০০/- এর মধ্যে

কোথায় থাকবেনঃ

শয়ন বিলাস হোটেল- চুয়াডাঙ্গা পৌরসভা অফিস/ একাডেমী মোড় এর কাছে, শহীদ আবুল কাসেম সড়কে অবস্থিত। শহরের যেকোনো জায়গা থেকে অটোতে গেলে ৫-১০ টাকা ভাড়া লাগবে।

আপনার কোন প্রশ্ন থাকলে বা এই বিষয়ে কোন কিছু জানানোর থাকলে নীচের মন্তব্য বিভাগে লিখতে ভুলবেন না । আপনার ভ্রমণ পিয়াশি বন্ধুদের সাথে নিবন্ধটি শেয়ার করে নিন যাতে তারাও জানতে পারে ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here